সর্বশেষঃ

ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান হলেন ভোলার কৃতি সন্তান প্রফেসর তপন কুমার সরকার

প্রথমবারের মত ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান হলেন ভোলার কৃতি সন্তান প্রফেসর তপন কুমার সরকার। গত ১৬ মে সরকার তাকে ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসেবে মনোনিত করেন। প্রফেসর তপন কুমার সরকার ভোলার উত্তর দিঘলদী ইউনিয়নের ঘুইংগার হাট বাজারের সরকার বাড়ীর প্রয়াত গোপাল সরকার ও প্রয়াত ফুলুরানী সরকার এর পুত্র। প্রফেসর তপন কুমার সরকার ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান হয়ে আমাদের ভোলাকে গর্বিত করেছেন।
কৃতি এ শিক্ষাবিদ জয়নগর উচ্চ বিদ্যালয় হতে এসএসসি, ভোলা সরকারী কলেজ হতে এইচএসসি ও জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয় হতে পদার্থ বিজ্ঞানে সম্মান সহ স্নাতোকোত্তর সম্পন্ন করেন। তিনি ১৪ তম বিসিএস এর শিক্ষা ক্যাডারের গর্বিত সদস্য হিসেবে প্রভাষক পদে ১৯৯৩ সালে ঝালকাঠি সরকারী কলেজে যোগ দেন। সেখান থেকে নরসিংদী সরকারী কলেজে বদলী হয়ে কিছুকাল চাকুরী করেন। ২০০১ সালে সহকারী অধ্যাপক পদে পদোন্নতি পেয়ে তিনি ভোলা সরকারী মহিলা কলেজে যোগ দেন। সেখান থেকে বদলী হয়ে তিনি টংগী সরকারী কলেজে আসেন। ২০০৯ সালে তিনি ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের উপ পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক পদে যোগ দেন। ২০১০ সালে তিনি সহযোগী অধ্যাপক হিসেবে পদোন্নতি পান। ২০১৬ সালে তিনি একই বোর্ডের পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকের দায়িত্ব পান। ২০১৮ সালে তিনি অধ্যাপক পদে পদোন্নতি পান এবং ২০১৯ সালে তিনি ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের সচিব নিযুক্ত হন।
পারিবারিক জীবনে তাঁর সহধর্মিনী মিসেস মীনা দে গাজীপুর ক্যান্টনমেন্ট কলেজের সহকারী অধ্যাপক, কন্যা প্রনমী সরকার অর্থনীতি বিষয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ৪র্থ বর্ষের শিক্ষার্থী আর পুত্র অর্পণ সরকার চলতি বছর নটরডেম কলেজ হতে এইচএসসি গোল্ডেন জিপিএ ৫ সহ উত্তীর্ণ হয়ে উচ্চ শিক্ষার প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।