তজুমদ্দিনে নিরাপত্তাহীন প্রতিবন্ধী পরিবার ॥ কোর্টে একাধিক মামলা দিয়ে হয়রানি

ভোলার তজুমদ্দিনে প্রতিবন্ধী কিশোরী মেয়েকে উত্যক্ত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। বিচার চেয়ে থানায় অভিযোগ দেয়ায় পুনরায় মারপিট ও বসতঘরে হামলা চালায় প্রতিপক্ষরা। আদালতে একে একে ৩টি অভিযোগ দিয়ে হয়রানি করছে প্রতিবন্ধী পরিবারকে।
থানায় অভিযোগ ও সরেজমিন এলাকায় গিয়ে জানাগেছে, উপজেলার চাঁদপুর ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের দাইয়ার পাড় গ্রামের হানিফ চৌকিদার বাড়ির দিনমুজুর নুরনবী ওরফে নবু’র প্রতিবন্ধী যুবতী মেয়ে শারমিন (১৬) কে উত্যক্ত করতো একই বাড়ির মৃত ইউনুছের বিবাহিত ছেলে আলাউদ্দিন।
প্রতিবন্ধী শারমিনের মা নুরনাহার জানান, পুকুরে গোগল বা থালাবাটি ধোয়ার সময় আলাউদ্দিন আমার মেয়েকে টাকার লোভ দেখিয়ে খারাপ কাজ করতে চায়। আসা যাওয়ার সময় একা পেয়ে জড়িয়ে ধরে গায়ে হাত দেয়। তার অভিভাবকদের জানালে আমাদের ঘরে এসে মারপিট করে। এ ঘটনায় আমরা গত ০১/১২/২০২০ইং তারিখে থানায় লিখিত অভিযোগ দেই। এতে ডাকাতি মামলার আসামী আলাউদ্দিন, তার মা সুফিয়া, স্ত্রী নিলুফা আমাদের বসতঘরে হামলা করে। এ ঘটনার বিচার পাইনি।
প্রতিবন্ধী শারমিনের দাদা রতন মিয়া জানান, আলাউদ্দিনরা থানায় মিথ্যা মামলা দিতে না পেরে আদালতে একে একে ৩টি অভিযোগ দিয়ে হয়রানি করছে। তাদের একটি অভিযোগ থানা তদন্ত করছে, আরেকটি ০৭/১০/২০২১ইং তারিখে কোর্টে ৬ জনকে হাজির হতে নোটিশ এসেছে। অপর একটি উপজেলা সমাজসেবা অফিসার তদন্ত করছে। আমরা এই মিথ্যা হয়রানির বিচার চাই।
এ বিষয়ে জানতে আলাউদ্দিনের বাসায় গেলে তার মা সুফিয়া বেগম জানান, আগে তারা মামলা দিয়েছে, এখন আমরাও দিয়েছি।
থানা অফিসার ইন-চার্জ এসএম জিয়াউল হক জানান, শুনেছি পুরানো বিষয় নিয়ে প্রতিপক্ষ আদালতে অভিযোগ দিয়েছে। প্রতিবন্ধী পরিবার থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।