ভোলার লালমোহনে তাবলীগ জামাতের ৭০ মুসল্লি আটকা

ভোলার লালমোহনে তাবলীগ জামাতের ৭০ মুসল্লি আটকা পড়েছে। সারাদেশে যানবাহন বন্ধ হয়ে যাওয়ায় এরা বাড়ি ফিরতে পারছে না। ঢাকা, চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে ৫টি জামাতে প্রায় ৭০ জন মুসল্লি আসে লালমোহনে। ১ চিল্লা (৪০ দিন) এর জন্য এরা জামাতবন্ধি হয়ে এসে এখন আটকা পড়েছে জামাতের এসব সাথীরা। করোনা ভাইরাসের কারণে সরকার হঠাৎ করে লঞ্চ ও বাসসহ সকল যানবাহন বন্ধ করে দেওয়ায় এরা আর বাড়ি ফিরতে পারছে না।
লালমোহন তাবলিগের মুরব্বি মোঃ শাখাওয়াত পঞ্চায়েত জানান, লালমোহনে বর্তমানে ৫টি জামাত অবস্থান করছে। এরা ঢাকা, চট্টগ্রামসহ বিভিন্ন এলাকা থেকে এক মাস আগে এসেছে। এদের ২টি জামায়াত গজারিয়া, ১টি পৌরসভার পূর্ব দায়রা বাড়ি মসজিদে, ১টি ওয়েস্টার্ণপাড়া মসজিদে ও অপর একটি চরছকিনা গ্রামের মসজিদে অবস্থান করছে। সরকার সকল যানবাহন হঠাৎ করে বন্ধ করে দেওয়ায় তারা আর বাড়ি ফিরতে পারছে না।
ঢাকা মীরপুর শ্যাওরা পাড়া থেকে একটি জামায়াত এসেছেন লালমোহন পৌরসভার পূর্বপাড়া দায়রা মসজিদে। ওই জামায়াতের আমির প্রফেসর খন্দকার কায়েস জানান, সরকার হঠাৎ যানবাহন বন্ধ করে দেওয়ায় আমরা বাড়ি ফিরতে পারছি না। স্থানীয় মুসল্লিরা ও আমাদের নিয়ে সমস্যায় আছে। আমরা এখন বাড়ি ফিরতে চাই। আমাদের জামাতে অনেক ছাত্র রয়েছে। সবাই সমস্যায় আছে।

জামাতের সাথী সাজিদ বিন সায়েম জানান, আমরা বাড়ি ফিরতে না পারায় পরিবারে আমাদের বাবা-মা দুশ্চিন্তায় রয়েছে। আমাদেরকে যদি কোন যানবাহনে করে বাড়ি পাঠানোর ব্যবস্থা করে তাহলে আমরা ফিরতে পারবো।

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।