করোনায় আইসিইউতে বৃটিশ প্রধানমন্ত্রী

প্রাণসংহারী করোনাভাইরাস থেকে রেহাই পাচ্ছেন না কেউ। সাধারণ মানুষ থেকে শুরু করে রানি, রাজকন্যা, প্রধানমন্ত্রী ও মন্ত্রী অনেকেই মরণঘাতী এ ভাইরাসে সংক্রমিত হচ্ছেন। বৃটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন হাসপাতালে আইসিইউতে অক্সিজেন সাপোর্টে রয়েছেন। টুইটারে এক ভিডিও বার্তায় তিনি নিজেই জানিয়েছেন, তার শরীরের তাপমাত্রা অনেক বেশি।

আইসোলেশনে থাকার ১০ দিন পরেও তার শরীরে করোনার লক্ষণ বেড়ে যাওয়ায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা। তারা বলছেন, এক সপ্তাহের বেশি কারও শরীরের তাপমাত্রা বেশি থাকলে তা থেকে নিউমোনিয়া হওয়ার আশঙ্কা থাকে।

দেশটির স্বাস্থ্যমন্ত্রী নাদিন দোরিস প্রথম কোনো মন্ত্রী হিসেবে করোনায় আক্রান্ত হলেও তিনি এখন সুস্থ হয়ে উঠেছেন। নাদিনের মতে, প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসনের ঘুমানো প্রয়োজন এবং সুস্থ হওয়া দরকার। ১০ দিন আগে করোনার উপস্থিতি ধরা পড়ার পর থেকেই আইসোলেশনে ছিলেন জনসন।

এর আগে, স্পেনের রাজকন্যা ও কঙ্গোর সাবেক প্রেসিডেন্ট করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। মারা গেছেন সোমালিয়ার সাবেক প্রধানমন্ত্রী। বৃটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথ ও স্বাস্থ্যমন্ত্রীও করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

 

সুত্র : https://www.shomoyeralo.com/details.php?id=92445

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।