করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ভোলায় বিডিএফআই’র স্বাস্থ্য সুরক্ষা সরঞ্জাম প্রদান

করোনাভাইরাস প্রতিরোধে দ্বীপজেলা ভোলার হাসপাতালে কর্তব্যরত চিকিৎসক ও নার্সদের ব্যবহারের জন্য বেশকিছু স্বাস্থ্য সুরক্ষা সরঞ্জাম প্রদান করেছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন ভোলা ডেভেপমেন্ট ফাউন্ডেশন ইন্টারন্যাশাল (বিডিএফআই)। শনিবার (৪ এপ্রিল) বিকালে ভোলার জেলা প্রশাসক মোঃ মাসুদ আলম ছিদ্দিক ও সিভিল সার্জন ডা. রতন কুমার ঢালী’র কাছে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে স্বাস্থ্য সুরক্ষা সরঞ্জামগুলো হস্তান্তর করে সংগঠনটি।
এসময় সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, “দেশের এই ক্রান্তী লগ্নে অত্যন্ত প্রয়োজনীয় জিনিস গুলো সঠিক সময়ে দান করার জন্য ভোলার সকল মানুষের পক্ষ থেকে বিডিএফআই সংগঠনের সকলের প্রতি ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি”।
জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হস্তান্তর অনুষ্ঠানে অন্যানের মধ্যে বিশেষ ভাবে উপস্থিত ছিলেন বিবিএস ক্যাবলস এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও ভোলার কৃতি সন্তান ইঞ্জিনিয়ার আবু নোমান হাওলাদার, বিডিএফআই এর সহ-সভাপতি মোঃ মাহফুজুর রহমান, সাধারন সম্পাদক মোঃ আব্দুল মজিদ, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক আ.হ.ম.ফয়সল, দৈনিক আজকালের খবর পত্রিকার ভোলা জেলা প্রতিনিধি ও ভোলা নিউজ এর সিনিয়র সহকারী সম্পাদক অর্জুন চন্দ্র দেসহ আরো গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।
হস্তান্তরকৃত সরঞ্জামগুলোর মধ্যে রয়েছে সার্জিক্যাল মাস্ক ১৫শ, সার্জিক্যাল ক্যাপ ১৫শ, গ্লাভস ৭ হাজার, সু-কভার ১শ, পিপিই ৪০টি, জিবানুনাশক স্প্রে মেশিন ১৫টি এবং জীবানুনাশক ওষুধ ৪০ ব্যাগ।
উল্লেখ্য, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে তৃনমূল পর্যায়ে সচেতনতা তৈরীর লক্ষে বিডিএফআই গত কয়েক দিন ধরে ভোলা জেলার ৭টি উপজেলার প্রায় ৫০টি ইউনিয়নের প্রত্যন্ত গ্রামে করোনাভাইরাস প্রতিরোধ সচেতনতায় মাইকিং ও লিফলেট বিতরণ করে যাচ্ছে। এ কার্যক্রম পরিচালনার জন্য ভোলায় ২২২ জনের ২১টি স্বেচ্ছাসেব টিম গঠন করা হয়েছে। প্রতি টিমে ১১ জন সদস্য স্প্রে মেশিন, মাস্ক, গ্লাব্স, পিপিই পরে সুরক্ষিত হয়ে জেলার প্রতিটি হাট-বাজার, হাসপাতালসহ নোংরা স্থান খুজে বের করে জিবানুনাশক ঔষধ স্প্রে করছে।

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।