ভোলায় করোনা আতঙ্কে গৃহবন্দী শ্রমজীবী মানুষের পাশে ইলিশা সেচ্ছাসেবী সংগঠন

সারা বিশ্বের সাথে করোনা আতঙ্কে রয়েছে বাংলাদেশ আর সেই আতঙ্কের প্রভাবে কর্মহীন হয়ে পড়েছে দ্বীপ জেলা ভোলার খেটে খাওয়া দিনমজুর, ভিক্ষুক এই অসহায় মানুষেরা।
আর সেই অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে ভোলা সদর উপজেলার ২নং ইলিশা ইউনিয়নের সমাজ কল্যাণ সেচ্ছাসেবী সংগঠন।
সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এবং ইলিশা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান দানশীল হাসনাইন আহমেদ হাসান মিয়ার নিজস্ব অর্থায়নে সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যদের অনুরোধে তিনি ১শ হতদরিদ্র দিনমজুর, ভিক্ষুক মানুষের জন্য চাল, ডাল, সাবান, আলু প্যাকেট করে দিয়েছেন।
হাসান চেয়ারম্যান এর সহযোগিতার সাথে সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যরা তাদের সামর্থ অনুযায়ী ইউনিয়নের হতদরিদ্র, ভিক্ষুক, প্রতিবন্ধী, অসহায় বিধবা মানুষের বাড়ী বাড়ী গিয়ে এই খাদ্য সামগ্রী তাদের হাতে তুলে দিয়েছেন।
হাসনাইন আহমেদ হাসান মিয়া বলেন, এটা আমার নিজের পক্ষ থেকে দিয়েছি, আমি খোঁজ নিয়ে দেখেছি ইলিশা সমাজ কল্যাণ সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যরা ভিক্ষুক, হতদরিদ্র দিনমজুর মানুষের তালিকা করে সহযোগিতা করে তাই আমি তাদের অনুরোধে আমার বাবা ইলিশা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান মরহুম আবদুর মিয়ার মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে এই বরাদ্দ দিয়েছি, এটা কোন সরকারী বরাদ্দ না।
এই সময় তিনি আরো বলেন ইলিশা ইউনিয়নে যদি আরো এই রকম সামাজিক সংগঠন যুবকরা গড়ে তুলে আর আমার কাছে কোন সহযোগিতা চায় আমি দিতে প্রস্তুত।
এদিকে সারাদিন ব্যাপী ইলিশা সমাজ কল্যাণ সেচ্ছাসেবী সংগঠনের সহ সভাপতি ইকবাল হাওলাদার, কবির হোসেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মোঃ সোহাগ খলিফা, কোষাধ্যক্ষ ইউসুফ সরদার, সাংগঠনিক সম্পাদক ইয়ামিন হাওলাদার,সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ ছাদ্দাম হোসেন , প্রচার সম্পাদক মোঃ সোহেল,ক্রীড়া সম্পাদক শংকর চন্দ্র ইউনিয়নের এই অসহায়দের ঘরে ঘরে নিয়ে খাদ্য সামগ্রী তুলে দিয়েছেন।
উল্লেখ এই সংগঠন প্রতিষ্ঠার লগ্নে থেকে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে ৬ জন এতিম দরিদ্র পরিবারের ছেলেমেয়েদের এইচএসসির ফরম পূরন ও করোনা সচেতনতায় ১১০ টি মসজিদে সাবান, রাস্তায় মাস্কসহ নানান সামাজিক কার্যক্রম চালিয়ে আসছে।

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।
দুঃখিত! কপি/পেস্ট করা থেকে বিরত থাকুন।