ভোলার পশ্চিম ইলিশায় বাক প্রতিবন্ধী মেয়ে নিয়ে মানবেতর জীবন কাটছে শেপালী রাণীর

ভোলা সদর উপজেলার পশ্চিম ইলিশা ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের চরপাতা গ্রামের নমুকান্দি গ্রামে স্বামী পরিত্যক্তা এক বাক প্রতিবন্ধী মেয়ে কে নিয়ে একটি ভাঙ্গা ঘরে মানবেতর জীবন কাটছে দুই মা মেয়ের।
সরজমিনে গিয়ে জানা যায়, শেপালী রাণীর ১ ছেলে কোন রকম দিনমজুরের কাজ করে এক মেয়ে বাক প্রতিবন্ধী বিয়ের দেওয়ার পর এক কন্যা সন্তান হলে বাক প্রতিবন্ধী রিণা রাণী কে রেখে স্বামী চলে যায়।
এর পর অনেক কষ্টে রিণার মেয়ে কে বিয়ে দেন শেপালী রাণী, বর্তমানে শেপালী রাণী আর তার মেয়ে রিনা রাণী হোগলা বুনে কোন রকম সংসার চালায়।
তাদের দুই মা মেয়ে জননেত্রী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বরাদ্দকৃত একটি ঘরের দাবী জানান।
শেপালী রাণী বলেন সরকারী একটি ঘর পেলে আমরা কোন রকম মাথাগোঁজার সুযোগ হইতো, বর্তমানে এই ভাঙ্গা ঘরটিতে খুব কষ্টে বসবাস করি।
এই বিষয়ে পশ্চিম ইলিশা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গিয়াসউদ্দিন বলেন, আমরা অনেকের তালিকা জমা দিয়েছি বরাদ্দ আসলে দেওয়া যাবে।

ফেসবুকে লাইক দিন

আমাদের সাইটের কোন বিষয়বস্তু অনুমতি ছাড়া কপি করা দণ্ডনীয় অপরাধ।